Ads Area

নিজের ভ্রমণের অভিজ্ঞতা অথবা কারো কাছ থেকে শোনা একটি ভ্রমণ কাহিনীর বর্ণনা দিয়ে ১৫০ শব্দের মধ্যে একটি নিবন্ধ রচনা করো

 

নিজের ভ্রমণের অভিজ্ঞতা অথবা কারো কাছ থেকে শোনা একটি ভ্রমণ কাহিনীর বর্ণনা দিয়ে ১৫০ শব্দের মধ্যে একটি নিবন্ধ রচনা করো

এসাইনমেন্ট: নিজের ভ্রমণের অভিজ্ঞতা অথবা কারো কাছ থেকে শোনা একটি ভ্রমণ কাহিনীর বর্ণনা দিয়ে ১৫০ শব্দের মধ্যে একটি নিবন্ধ রচনা করো।


আমার স্কুলের শিক্ষামূলক ভ্রমণের অভিজ্ঞতা:

সুচনাঃ ছাত্র জীবন হলো মানুষের জীবনের সবচেষে গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায্‌। জীবনের এই সমযে আমরা নিজেদের চরিত্রকে ইচ্ছেমতন গড়ে তোলার সুযোগ পাই। আর আমি একজন ছাত্র হিসেবে আমার স্কুলের পক্ষ থেকে যাওয়া সুন্দরবন শিক্ষানভ্রমণের বিবরণ নিচে দেওয়া হলোঃ

স্থান নির্বাচনের কারণ: সুন্দরবনকে আমাদের শিক্ষা সফরের জন্য নির্বাচন করার পেছনে বেশ কষযেকটি কারণ বিদ্যমান। সুন্দরবন একদিকে যেমন ভূ-প্রকৃতির দিক থেকেও অনন্য, অন্যদিক থেকে আবার উদ্ভিদ ও প্রাণী জগতের বিবিধ বৈচিত্রের ব্যাপারেও সুন্দরবনের জুঁডি মেলা ভার।

যাত্রাপথ এবং ভ্রমণ পরিকল্পনা: আমাদের বিদ্যালয্‌ থেকে ষষ্ঠ শ্রেণীর মোট ৪২ জন ছাত্র সুন্দরবনের শিক্ষাসফরে যাওযার জন্য নাম নথিভুক্ত করেছিল। আমাদের সঙ্গে আরো ১০ জন শিক্ষকের যাওয্যর জন্য একটি বাস ভাডা করা হযেছিল। বিগত অক্টোবর মাসের ১২ তারিখ রাত ন"টা নাগাদ আমরা সকলে বাসটিতে করে সুন্দরবনের উদ্দেশ্যে রওনা দিই। পরের দিন ভোরবেলা খুলনা জেলার বাগেরহাট হয়ে আমাদের বাস পৌছায় মংলাতে। সেইখান থেকে লঞ্চে করে যাওযা হয় সুন্দরবন।

ভূপ্রকৃতি সম্বন্ধিত জ্ঞানলাভ: মংলা থেকে লঞ্চে করে সুন্দরবন রওনা হওয়ার পর থেকেই একটু একটু করে অনুভূত হতে থাকে সুন্দরবনের শোভা। সেইসঙ্গে আমাদের শিক্ষকেরাও সকলের কাছে সুন্দরবনের তৃপ্রকৃতি এবং তার প্রভাব সম্পর্কে ব্যাখ্যা করতে থাকেন। তাদের কাছে আমরা জানতে পারি সুন্দরবন হলো পৃথিবীর সবথেকে বড় লবণাক্ত বনাঞ্চল।

অরণ্যানী পরিদর্শন: মংলা থেকে সুন্দরবনের দিকে প্রাথমিক পর্বেই যা চোখে পড়ে তাহলে অরন্যের বিপুল বাহার। আমাদের পরিবেশ বিজ্ঞানের শিক্ষক বললেন সুন্দরবনের প্রাঘ্‌ ৩৫০ প্রজাতির উদ্ভিদ পাওয়া যায়। তার মধ্যে বেশকিছু আবার দুষ্প্রাপ্য। মাটিতে লবণের ভাগ বেশি থাকার কারণে এখানকার উদ্ভিদের সিংহভাগই ম্যানগ্রোভ প্রজাতির। তবে যে গাছটি এখানে সবচেষে বেশি চোখে পড়ে তা হল সুন্দরী গাছ।

বন্যপ্রাণী পরিদর্শনের অভিজ্ঞতা: অরণ্য পরিদর্শনের ফীকে ফীকেই মাঝেমধ্যে চোখে পড়ছিল রংবেরঙের নাম না জানা নানা পাখি, দু একটা হরিণ, গাছে ঝুলতে থাকা মৌচাক ইত্যাদি। আমাদের শিক্ষকেরা নিজেদের সাধ্যমতন পাখিগুলির ব্যাপারে আমাদের কাছে ব্যাখ্যা করেছিলেন। এরই মধ্যে একটি হরিণ চোখে পডায্‌ শিক্ষকদের থেকে আমরা জানতে পারি এটি হলো সুন্দরবনের বিখ্যাত চিত্রা হরিণ।

উপসংহার: শিক্ষা সফরের এই অভিজ্ঞতা আমার জীবনে যে কতটা অভূতপূর্ব ছিল তা বলে বোঝানো যাবে না। সুন্দরবনের অপরুপ সৌন্দর্য, ব্যাপক জীব বৈচিত্রের শোভা এবং বন্ধু ও শিক্ষকদের সাথে কাটিয়ে আমাদের মন এক অন্তুত পূর্ণতায় ভরে উঠেছিল।

  • ১১ম -১২ম শ্রেণীর এইচএসসি ও আলিম এসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ১০ম শ্রেণীর এসএসসি ও দাখিল এসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৬ষ্ঠ ,৭ম,৮ম ৯ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৯ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৮ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৭ম শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক
  • ৬ষ্ঠ শ্রেণীর এ্যাসাইনমেন্ট উত্তর ২০২১ লিংক

 

إرسال تعليق

0 تعليقات

Ads Area